BLACK blog এ আপনাকে স্বাগতম! আপনি হতে পারেন BLACK blog পরিবারের নিয়মিত একজন সদস্য। আপনার লেখা প্রকাশ করতে পারেন আমাদের যেকোন বিভাগে। আমাদের বিভাগ সমূহঃ " পৃথিবী আজব ঘটনা, গুনিজন কহেন , জন্মদিনের উইস করার এসএমএস, সমস্যা পরামর্শ সমাধান , মেয়েদের মেহেদি ডিজাইন, বাচ্চাদের নাম , পৃথিবীর ঐতিহাসিক প্রবাদ, পর্দার পেছনের ঘটনা, যত অদ্ভুত আবিস্কার , কাল্পনিক কল্পনা, অন্যান্য এবং আরও কিছু, পৃথিবী আজব ঘটনা, ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৫, গুনিজন কহেন , জন্মদিনের উইস করার এসএমএস, সমস্যা পরামর্শ সমাধান , মেয়েদের মেহেদি ডিজাইন, বাচ্চাদের নাম , পৃথিবীর ঐতিহাসিক প্রবাদ, পর্দার পেছনের ঘটনা, যত অদ্ভুত আবিস্কার , কাল্পনিক কল্পনা, অন্যান্য এবং আরও কিছু, পৃথিবী আজব ঘটনা, ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৫, গুনিজন কহেন , জন্মদিনের উইস করার এসএমএস, সমস্যা পরামর্শ সমাধান , মেয়েদের মেহেদি ডিজাইন, বাচ্চাদের নাম , পৃথিবীর ঐতিহাসিক প্রবাদ, পর্দার পেছনের ঘটনা, যত অদ্ভুত আবিস্কার , কাল্পনিক কল্পনা, গুনিজন কহেন, অন্যান্য এবং আরও কিছু, পৃথিবী আজব ঘটনা, ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৫, গুনিজন কহেন , জন্মদিনের উইস করার এসএমএস, সমস্যা পরামর্শ সমাধান , মেয়েদের মেহেদি ডিজাইন, বাচ্চাদের নাম , পৃথিবীর ঐতিহাসিক প্রবাদ, পর্দার পেছনের ঘটনা, যত অদ্ভুত আবিস্কার , কাল্পনিক কল্পনা" যে কোন বিষয় সম্পর্কে। ধন্যবাদ - BLACK iz Limited এর পক্ষ থেকে! অন্যান্য এবং আরও কিছু, পৃথিবী আজব ঘটনা, ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৫, গুনিজন কহেন , জন্মদিনের উইস করার এসএমএস, সমস্যা পরামর্শ সমাধান , মেয়েদের মেহেদি ডিজাইন, বাচ্চাদের নাম , পৃথিবীর ঐতিহাসিক প্রবাদ, পর্দার পেছনের ঘটনা, যত অদ্ভুত আবিস্কার , কাল্পনিক কল্পনা, অন্যান্য এবং আরও কিছু, পৃথিবী আজব ঘটনা, ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৫, গুনিজন কহেন , জন্মদিনের উইস করার এসএমএস, সমস্যা পরামর্শ সমাধান , মেয়েদের মেহেদি ডিজাইন, বাচ্চাদের নাম , পৃথিবীর ঐতিহাসিক প্রবাদ, পর্দার পেছনের ঘটনা, যত অদ্ভুত আবিস্কার , কাল্পনিক কল্পনা, অন্যান্য এবং আরও কিছু, পৃথিবী আজব ঘটনা, ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৫, গুনিজন কহেন , জন্মদিনের উইস করার এসএমএস, সমস্যা পরামর্শ সমাধান , মেয়েদের মেহেদি ডিজাইন, বাচ্চাদের নাম , পৃথিবীর ঐতিহাসিক প্রবাদ,  পর্দার পেছনের ঘটনা, যত অদ্ভুত আবিস্কার , কাল্পনিক কল্পনা, গুনিজন কহেন, অন্যান্য এবং আরও কিছু, পৃথিবী আজব ঘটনা, ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৫, গুনিজন কহেন , জন্মদিনের উইস করার এসএমএস, সমস্যা পরামর্শ সমাধান , মেয়েদের মেহেদি ডিজাইন, বাচ্চাদের নাম , পৃথিবীর ঐতিহাসিক প্রবাদ, পর্দার পেছনের ঘটনা, যত অদ্ভুত আবিস্কার , কাল্পনিক কল্পনা

ট্যাবলেট কম্পিউটারের মতো কাজ

Tab

হাতে হাতে এখন ল্যাপটপ কম্পিউটার এর পাশাপাশি ট্যাবলেট কম্পিউটারও বেশ দেখা যাচ্ছে। ল্যাপটপের অনেক কাজই করা যায় ট্যাব বা প্যাড নামে পরিচিতি পাওয়া হাতের এই যন্ত্র দিয়ে। তারহীন ওয়াই-ফাই সুবিধা থাকায় ইন্টারনেট যেমন ব্যবহার করা যায়, তেমনি কোনো কোনো ট্যাবলেটে সিমকার্ড যুক্ত করে ফোনের কাজও করা যায়।

আধুনিক জীবনযাত্রায় কম্পিউটার ও ট্যাবলেট অনেকেরই কাজে লাগছে। আবার এর নকশা ও আকারের কারণে ফ্যাশনেবল যন্ত্র হিসেবেও কদর বাড়ছে। রায়ানস আইটি লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী বলেন, ‘শিক্ষার্থী বা তরুণ উদ্যোক্তাদের জন্য এটি বেশ কাজের। সহজে যেহেতু গ্রাফিকসের কাজ বা ভিডিও দেখানো যায়, তাই সৃজনশীল পেশাজীবীদের জন্য এটি বেশ কাজের। আর সহজেই ট্যাবলেটে সামাজিক যোগাযোগের ওয়েবসাইট ব্যবহার করা যায়। করপোরেট প্রতিষ্ঠানের কর্মীরা ট্যাব বেশ ব্যবহার করেন।’

স্মার্টফোনের মতো ট্যাবলেট কম্পিউটারের পর্দা ছুঁয়ে ছুঁয়ে কাজ করা যায়। সাইম টেলিকমের স্বত্বাধিকারী বলেন, ট্যাবলেটের পর্দার আকার ৭ থেকে ১২ ইঞ্চির মধ্যে হয়ে থাকে। পর্দার আকার বড় হওয়ায় অনেক ধরনের কাজ ট্যাব দিয়ে করা যায়। আর নানা কাজের জন্য এতে থাকে বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন (অ্যাপ)।

বাজারে যেসব ট্যাবলেট পাওয়া যায় কম্পিউটারের মতো সেসবে এখন ১ থেকে ১.৪ গিগাহার্টজ গতির প্রসেসর থাকছে। এর সঙ্গে আছে ৫১২ মেগাবাইট থেকে ২ গিগাবাইট পর্যন্ত র্যাম। ট্যবে সামনে-পেছনে দুদিকেই ক্যামেরা থাকে, যা দিয়ে ছবি ও ভিডিও ধারণ করা যায়। সাধারণত ৫ থেকে ৮ মেগাপিক্সেল মানের পেছনের ক্যামেরা এবং ১.৩ থেকে ৫ মেগাপিক্সেল পর্যন্ত সামনের ক্যামেরা থাকে। ট্যবে ১৬ থেকে ১২৮ গিগাবাইট পর্যন্ত তথ্য ধারণ করার ব্যবস্থা থাকছে। ট্যাব এর ব্যাটারির চার্জ থাকে তিন থেকে নয় ঘণ্টা। বেশির ভাগ 8 ট্যাব তারহীন ওয়াই-ফাই এবং মুঠোফোনের সিমকার্ড ব্যবহার করা যায়।

সাধারণত অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে আইওএস, অ্যান্ড্রয়েড ও উইন্ডোজ থাকে ট্যাবলেটে।

ট্যাব আর প্যাডে পার্থক্য কী?

দুটোই মূলত ট্যাবলেট কম্পিউটার। ট্যাব ও প্যাড আসলে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের দেওয়া নাম। অ্যাপল কম্পিউটারের তৈরি ট্যাবলেট কম্পিউটারের নাম আইপ্যাড। আবার স্যামসাং যেমন তৈরি করেছে গ্যালাক্সি ট্যাব। প্যাড আর ট্যাব আদতে একই ধরনের যন্ত্র।

বর্তমানে অফিসের কাজ, ইন্টারনেট ও গেম খেলার জন্য ট্যাবলেট বেশি কিনছেন ক্রেতারা, জানালেন ট্রান্সকম ইলেকট্রনিকসের ক্যাটাগরি সেলস ম্যানেজার ও অ্যাকটিভ স্টিচ লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক জানান, সাধারণত বিদেশ থেকে ক্রেতারা প্রতিনিয়ত নানা ধরনের অর্ডার কিংবা প্রয়োজনীয় বিষয়গুলো নিয়ে ই-মেইলে যোগাযোগ করেন। সে ক্ষেত্রে সবচেয়ে জরুরি কাজগুলো ট্যাবলেটে করা যায়। এ ছাড়া সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ব্যবহার, অফিসের অন্যান্য কাজের (ডকুমেন্ট তৈরি, সম্পাদনা, নোট) ক্ষেত্রেও ট্যাব বেশ উপকারি। বহনযোগ্য হওয়ায় এসব কাজ গাড়িতে বসেই করা যায়।

দেশের বাজারে বিভিন্ন নির্মাতার তৈরি নানা ধরনের ট্যাবলেট কম্পিউটার পাওয়া যায়। অ্যাপল, এসার, স্যামসাং, মাইক্রোসফট, আসুস, তোশিবা, লেনোভো, সনি, ফুজিৎসু, সিম্ফনি, টুইনমস ইত্যাদি ব্র্যান্ডের ট্যাবলেট কম্পিউটার বাজারে পাওয়া যায়। বাজারে ছয় হাজার টাকা থেকে শুরু করে ৬০ হাজার টাকা পর্যন্ত দামের ট্যাবলেট কম্পিউটার পাওয়া যাচ্ছে।



সর্বশেষ ১২টি:

.